শনিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২০, ০২:১৫ অপরাহ্ন




বাস কাউন্টারে শিশুকে রেখে মা নিরুদ্দেশ

খবরপত্র ডেস্ক:
  • আপডেট সময় মঙ্গলবার, ১৩ অক্টোবর, ২০২০




দশ মাস বয়সী এক শিশুকে বাস কাউন্টারে রেখে পালিয়ে যান মা। নাম পরিচয় না জানা সেই শিশুটিকে উদ্ধার করে পরিবারের কাছে পৌঁছে দিয়েছে পুলিশ। গত সোমবার (১২ অক্টোবর) সকালে চট্টগ্রাম নগরীর পাহাড়তলী থানাধীন অলংকার মোড়ে স্টার লাইন বাস কাউন্টারে এই ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পাহাড়তলী থানা পুলিশ ওই শিশুটিকে উদ্ধার করে। পরে পরিচয় শনাক্ত করে শিশুটিকে তার পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়।
পাহাড়তলী থানার ওসি মাইনুর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, বাস কাউন্টারের একটি চেয়ারের ওপর শিশুটিকে রেখে তার মা পালিয়ে যান। কিছুক্ষণ পর সেখানে থাকা যাত্রীরা পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ গিয়ে ওই শিশুর পাশে একটি ব্যাগ পান। ব্যাগে শিশুটির কিছু কাপড়চোপড় আর তার টিকার কার্ড ছিল। ওই টিকার কার্ডের সূত্র ধরেই আমরা তার পরিচয় শনাক্ত করি। এরপর ওই নারীর পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করে তার এক আত্মীয়ের কাছে শিশুটিকে হস্তান্তর করি। বর্তমানে শিশুটি নগরীর বায়েজিদ এলাকায় অবস্থিত ওই আত্মীয়ের বাসায় রয়েছে।
পাহাড়তলী থানার ওসি আরও বলেন, টিকার কার্ডে স্বাস্থ্যকর্মীর নম্বর ছিল। আমরা ওই স্বাস্থ্যকর্মীর সঙ্গে যোগাযোগ করে তার ঠিকানা জোগাড় করি। পরে স্থানীয় ইউনিয়ন চেয়ারম্যান, মেম্বারের মাধ্যমে ওই বাড়িতে যোগাযোগ করে নিশ্চিত হই। এরপর তারা নগরীতে থাকা আবুল কালাম নামে এক আত্মীয়ের নম্বর দিলে যোগাযোগ করে শিশুটিকে তার কাছে হস্তান্তর করি। আবুল কালাম শিশুটির মা সুরাইয়া আক্তারের খালু। সুরাইয়ার গ্রামের বাড়ি বান্দরবানের লামা উপজেলায়।
আবুল কালাম বলেন, শিশুটি আমার স্ত্রীর ছোট বোনের মেয়ে সুরাইয়া আক্তারের। মেয়েটি কখন চট্টগ্রামে এসেছে জানতাম না। দুপুরে তার মা (শিশুটির নানু) আমাকে কল করে বিষয়টি জানালে পুলিশের সঙ্গে যোগযোগ করি। পরে পুলিশ শিশুটিকে আমার কাছে হস্তান্তর করে। বর্তমানে শিশুটি আমাদের বাসায় আছে। খবর পেয়ে শিশুটির খালা ও মামা এসেছেন।
শিশুটির খালা শিউলি আক্তার বলেন, সুরাইয়া আমার ছোট বোন। আমাদের বাড়ির পাশে একটি মাদ্রাসায় পড়া এক ছেলের সঙ্গে দুই বছর আগে তার প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। পরে পরিবারের অমতে সুরাইয়া ওই ছেলের সঙ্গে ঢাকায় পালিয়ে গিয়ে বিয়ে করে। দুই তিন মাস পর ঢাকা থেকে আমাদের বাসায় চলে আসে। এরপর তার স্বামী আর কোনও খোঁজ খবর নেয়নি। ১০ মাস আগে তার ছেলে হয়। এরপর আমাদের সঙ্গে বাড়িতে ছিলেন। গত শুক্রবার (৯ অক্টোবর) সকাল ১১টার দিকে ঢাকায় ভাবির বাসায় যাবেন বলে বাড়ি থেকে বের হন। আজ সোমবার (১২ অক্টোবর) সকাল ১১টার দিকে জানতে পারি সে তার শিশু সন্তানকে বাস কাউন্টারে রেখে পালিয়ে গেছে।
তিনি আরও বলেন, পুলিশের কাছ থেকে খবর পেয়ে আমরা তার মোবাইল নম্বরে যোগাযোগ করি। তখন ফোন রিসিভ করে সে ঢাকায় ভাবির কাছে যাচ্ছে বলে জানায়। তারপর থেকে মোবাইল বন্ধ। রাত ১০টা পর্যন্ত তার সঙ্গে আর কোনও যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।
গত দুইদিন সে কোথায় ছিল জানতে চাইলে তিনি বলেন, এ ব্যাপারে আমরা জানি না। বাসা থেকে বের হওয়ার সময় সে বলেছিল ঢাকায় ভাবির বাসায় যাবে। চট্টগ্রামে কার কাছে, কোথায় ছিল, কিছু জানতে পারিনি।




শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর









© All rights reserved © 2020 khoborpatrabd.com
Theme Developed BY ThemesBazar.Com