বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৪, ০৪:২৫ অপরাহ্ন

বিশ্বের ২২০ কোটি মানুষ বিশুদ্ধ পানি পায় না : জাতিসঙ্ঘ

খবরপত্র ডেস্ক:
  • আপডেট সময় সোমবার, ২৫ মার্চ, ২০২৪

বিশ্বের অন্তত ২২০ কোটি মানুষ বিশুদ্ধ পানি পায় না বলে জানিয়েছে জাতিসঙ্ঘ। বিশ্ব পানি দিবস উপলক্ষ্যে ইউনেস্কোর তৈরি করা এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়। প্রায় ৩৫০ কোটি মানুষের নিরাপদ স্যানিটেশন ব্যবস্থার সুযোগ নেই বলেও শুক্রবার প্রকাশিত প্রতিবেদনে জানানো হয়। এছাড়া বিশ্বের প্রতি দু’জনের একজন বছরের কয়েক মাস পানির অভাবে কাটায় বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়। ‘বিশ্বের কিছু অঞ্চলে পানির সঙ্কট ব্যতিক্রমের চেয়ে স্বাভাবিক হয়ে উঠেছে,’ বলছেন ইউনেস্কোর মহাপরিচালক অড্রে আজুলে।
‘আমরা এই ধরনের পরিস্থিতির পরিণতি জানি : পানির ঘাটতি শুধু ভূ-রাজনৈতিক উত্তেজনাকে উসকে দেয় না, বরং সামগ্রিকভাবে মৌলিক অধিকারের জন্য হুমকি সৃষ্টি করে,’ বলেন তিনি। জাতিসঙ্ঘ বলছে, জলবায়ু পরিবর্তন ও পানির সঙ্কট বাড়তে থাকায় আঞ্চলিক স্থিতিশীলতা ও সংঘাত প্রতিরোধের জন্য আন্তঃসীমান্ত পানি সহযোগিতার গুরুত্ব বাড়ছে। ‘পানি ও শান্তি একে অন্যের সঙ্গে ঘনিষ্ঠভাবে সংশ্লিষ্ট,’ বলে এএফপিকে জানান ইউএন ওয়াটার কনভেনশনের সচিব সনিয়া ক্যোপেল।
তিনি বলেন, স্বাদু পানি সম্পদের ৬০ শতাংশের বেশি দুই বা তার চেয়ে বেশি সংখ্যক দেশ শেয়ার করে, যেমন ইউরোপের রাইন ও দানিয়ুব নদী, এশিয়ার মেকং, আফ্রিকার নীল ও ল্যাটিন আমেরিকার অ্যামাজন নদী। ‘শান্তি, উন্নয়ন ও জলবায়ু অ্যাকশনের জন্য এসব পানি নিয়ে সহযোগিতা গুরুত্বপূর্ণ,’ বলেন তিনি। পানি এত গুরুত্বপূর্ণ সম্পদ যে- এটি দ্বন্দ্বে থাকা দেশগুলোকে এক টেবিলে আনতে পারে। ফলে পানি ছাড়াও দ্বন্দ্বের অন্যান্য ইস্যুতেও সমাধানের পথ খোলা হয় বলে মনে করেন ক্যোপেল।
২০১৬ সালে জাতিসঙ্ঘের টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রায় বলা হয়েছিল, বিশ্বের ১৪০টি নি¤œ ও মধ্য আয়ের দেশে নিরাপদ খাবার পানি, স্যানিটেশন ও হাইজিনের ব্যবস্থা করতে ২০১৬ থেকে ২০৩০ সালের মধ্যে ১.৭ ট্রিলিয়ন ডলার খরচ হবে, অর্থাৎ বছরে ১১৪ বিলিয়ন ডলার। ২০১৫ থেকে ২০২১ সালের মধ্যে পানি খাতে উন্নয়ন সহায়তা ১৫ শতাংশ কমেছে বলে প্রতিবেদনে জানানো হয়।




শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর









© All rights reserved © 2020 khoborpatrabd.com
Theme Developed BY ThemesBazar.Com