বৃহস্পতিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৩:২৯ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম ::
মধুপুরে প্রাকৃতিক দুর্যোগ প্রতিরোধে তাল গাছের চারা রোপণ কর্মসূচির উদ্বোধন চৌহালীতে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব স্মরণে স্মৃতি স্তম্ভ মৃত্যুঞ্জয়ী উদ্বোধন রাজশাহীতে অপহৃত দুই বোন উদ্ধার, অপহরণকারী গ্রেফতার পলাশবাড়ীতে অসুস্থ শিশুকে বাঁচাতে সাহায্যের আবেদন জয়পুরহাটের পাঁচবিবিতে মন্দির নির্মাণ ও আলোচনা সভা গজারিয়ায় বাউশিয়া ইউনিয়নে চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান এর নিজস্ব অর্থায়নে রাস্তা সংস্কার নগরকান্দায় প্রচার মাধ্যমে মিথ্যা সংবাদ প্রকাশের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচন চাই: মান্না জামায়াত নেতৃবৃন্দের মুক্তির দাবিতে লন্ডনে বিক্ষোভ ই-কমার্সের প্রতারণার দায়িত্ব নিতে হবে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়কে : অর্থমন্ত্রী




নানা রোগে উপকারি হলুদ ও তুলসি পাতা

খবরপত্র ডেস্ক:
  • আপডেট সময় বুধবার, ৮ সেপ্টেম্বর, ২০২১




আমাদের শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানো অত্যন্ত জরুরি। নানা রোগের সঙ্গে লড়াই করার জন্য আমাদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা শক্তিশালী করার কোন বিকল্প নেই। আর এই কাজে সাহায্য করতে পারেন নানা ধরনের পানীয়। নিয়মিত আপনি যদি হলুদ ও তুলসি পাতা দিয়ে পানীয় তৈরি করে খান তবে বৃদ্ধি পাবে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা। করোনা মহামারি ছাড়াও ঋতু পরিবর্তনের এই সময়ে অনেক ধরনের রোগ-জীবাণু আমাদের আক্রমণ করতে পারে। এতে দুর্বল রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা সম্পন্ন মানুষের অসুস্থ হয়ে পড়ার ঝুঁকি থাকে সবচেয়ে বেশি। আপনার প্রতিদিনের ডায়েটে স্বাস্থ্যকর খাবার অন্তর্ভুক্ত করার পাশাপাশি, বাইরের খাবার এড়ানো উচিত, এমনটাই পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের।
আপনার অসুস্থতার বিরুদ্ধে লড়াই করার সবচেয়ে কার্যকর উপায় হতে পারে তুলসী এবং হলুদের মিশ্রনের পানি। এই পানীয়টি রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে এবং ঠান্ডাজনিত গলার ব্যথা দূর করতে সহায়তা করে।
এই পানীয়টি তৈরি করতে যা যা দরকার হলুদের গুঁড়া আধা চা চামচ,তুলসী পাতা- ৮-১২টি,মধু- ২-৩ টেবিল চামচ,লবঙ্গ- ৩-৪টি,দারুচিনি- ১ টুকরো।
যেভাবে তৈরি করবেন: একটি প্যান নিয়ে তাতে একগ্লাস পানি ঢালুন। এবার তাতে হলুদ গুঁড়া, তুলাসি পাতা, লবঙ্গ এবং দারুচিনি যোগ করুন। ১৫ মিনিটের জন্য ফুটতে দিন। অবশ্যই বিশুদ্ধ পানি ব্যবহার করবেন। ১৫ মিনিট পরে পানি ছেঁকে নিন এবং হালকা গরম অবস্থায় পান করুন। স্বাদ বাড়ানোর জন্য এতে মধু যোগ করতে পারেন। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানো এবং সর্দি-ফ্লু নিরাময়ের জন্য এটি দিনে ২-৩ বার খেতে পারেন।
এই পানীয় পানের উপকারিতা: এই পানীয় পান করে কোষ্ঠকাঠিন্য এবং লুজ মোশন সম্পর্কিত সকল সমস্যা সমাধান করা যেতে পারে। ঠান্ডা এবং গলা ব্যথা থেকে মুক্তি দেয়।
ডায়াবেটিক রোগীরা তাদের রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখতে এটি পান করতে পারেন। এটি আপনার শরীরকে বিষাক্ত পদার্থ থেকে মুক্তি দিতে সাহায্য করে এবং রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা উন্নত করে। সূত্র-টাইমস অব ইন্ডিয়া




শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর









© All rights reserved © 2020 khoborpatrabd.com
Theme Developed BY ThemesBazar.Com