শুক্রবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ১২:০০ পূর্বাহ্ন




খালেদা জিয়া ২০০৯ সালে বুঝতে পেরেছিলেন দেশ অসুস্থ হবে : আলাল

নিজস্ব প্রতিবেদক:
  • আপডেট সময় বুধবার, ১৮ নভেম্বর, ২০২০




বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল বলেছেন, বিএনপি নেত্রী বেগম খালেদা জিয়া ২০০৯ সালে বুঝতে পেরেছিলেন এই দেশ অসুস্থ হবে। এদেশের মানুষকে বাঁচানোর জন্য সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। গতকাল বুধবার রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের নিচে অনুষ্ঠিত এক মিলাদ ও দোয়া মাহফিলে তিনি এসব কথা বলেন।

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস, জাতীয়তাবাদী মহিলা দলের সভাপতি আফরোজা আব্বাসের রোগমুক্তি কামনায় এ মিলাদ ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। এ মিলাদ ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী মহিলা দল।
মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল বলেন, গোটা বাংলাদেশ আজ অসহায়। এই বাংলাদেশকে পরিচর্যা করা, সুস্থ করার জন্য যিনি সবচেয়ে জনপ্রিয়, মানুষের কাছে সবচেয়ে গ্রহণযোগ্য সেই নেত্রী বেগম খালেদা জিয়া অসুস্থ। অনেক যোগ্য নেতারা আমাদের কাছ থেকে হারিয়ে গেছেন কোভিড-১৯ এর কারণে, অন্য কারণে। এখনো অনেকে অসুস্থ আছেন।
তিনি বলেন, অসুস্থ বাংলাদেশকে সবার আগে সুস্থ করা দরকার। এই বাংলাদেশে দুর্নীতির দিক থেকে অসুস্থ। এই বাংলাদেশে গণতন্ত্রের দিক থেকে অসুস্থ। স্বাধীনতার যে মূলমন্ত্র ছিল তা থেকে বাংলাদেশে আজ অসুস্থ। বাংলাদেশ দুর্বল হয়ে পড়ছে। বিএনপি যুগ্ম মহাসচিব বলেন, ২০০৯ সালে কাউন্সিলের সময় আমাদের নেত্রী স্লোগান ঠিক করে দিয়েছিলেন ‘দেশ বাঁচাও মানুষ বাঁচাও।’ ২০০৯ সালে তিনি বুঝতে পেরেছিলেন এই দেশ অসুস্থ হবে। এদেশের মানুষ অবহেলায়-অযতেœ মারা যাবে। এদেশের মানুষ বিভিন্ন নির্যাতনে মারা যাবে। এদেশের মানুষ বিদেশে যাওয়ার সময় নৌকাডুবিতে মারা যাবে। ক্রসফায়ারে মারা যাবে, আওয়ামী লীগের নির্যাতনে মারা যাবে। বোনের ইজ্জত-সম্ভব হারিয়ে কেউ কেউ মারা যাবে। যে কারণে তিনি (খালেদা জিয়া) এক কথায় বুঝিয়ে দিয়েছিলেন ‘দেশ বাঁচাও মানুষ বাঁচাও।’ আর সেই কথাটা খুব বেশি করে মনে পড়ছে, এতো আগে তিনি কি করে বুঝতে পেরেছিলেন? এদেশের মানুষকে বাঁচানোর জন্য সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।
বিএনপি চেয়ারপারসনের মুক্তি প্রসঙ্গে তিনি বলেন, বেগম খালেদা জিয়াকে নাকি মানবিক কারণে মুক্তি দেয়া হয়েছে। আওয়ামী লীগের নেত্রী জাতীয় সংসদেও বলেন বেগম খালেদা জিয়াকে মানবিক কারণে মুক্তি দেয়া হয়েছে। ‘বেগম খালেদা জিয়াকে মানবিক কারণে মুক্তি দেয়া হয় নাই। বেগম খালেদা জিয়াকে করোনাভাইরাসের ভয়ে মুক্তি দেয়া হয়েছে। ডাক্তাররা নার্সরা প্রত্যেকে ভয়ে ভীত ছিল যে কার মাধ্যমে থেকে কার মাধ্যমে যায়, কার শরীরের মধ্যে যায়, সেটা একটা আতঙ্কজনক পরিস্থিতি। সেই কারণে তাকে মুক্তি দেয়া হয়েছে। আসলে তাকে স্থানান্তর করা হয়েছে। বেগম খালেদা জিয়ার বর্তমান যে মুক্তি এটা মুক্তি না। মিলাদ ও দোয়া মাহফিলে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য সেলিম বেগম সেলিমা রহমান ও মহিলা দলের নেতৃবৃন্দ।




শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর









© All rights reserved © 2020 khoborpatrabd.com
Theme Developed BY ThemesBazar.Com