সোমবার, ২৩ নভেম্বর ২০২০, ০১:৪৫ পূর্বাহ্ন




স্বাস্থ্য অধিদফতরের ডিজির পদত্যাগ চেয়ে আইনি নোটিশ

খবরপত্র অনলাইন ডেস্ক :
  • আপডেট সময় বৃহস্পতিবার, ২৩ এপ্রিল, ২০২০




করোনায় মানুষের স্বাস্থ্যগত বিষয়ে যথাযথ পদক্ষেপ গ্রহণে ব্যর্থতার অভিযোগ এনে স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালকের (ডিজি) পদত্যাগ চেয়ে আইনি নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৩ এপ্রিল) সকালে ই-মেইলের মাধ্যমে এ নোটিশ পাঠিয়েছেন সুপ্রিমকোর্টের আইনজীবী মো. জে আর খান (রবিন)।

নোটিশে করোনাভাইরাস মোকাবিলায় স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক ব্যর্থ হয়েছেন এমনটি উল্লেখ করে তাকে দ্রুত পদত্যাগ করতে বলা হয়েছে। অন্যত্থায় তার বিরুদ্ধে আইননানুগ পদক্ষেপ নেওয়া হবে বলে নোটিশকারী আইনজীবী জানিয়েছেন।

নোটিশে বলা হয়েছে, একাধিক জাতীয় দৈনিক প্রত্রিকা ও অনলাইন নিউজ প্রোর্টালে প্রকাশিত খবরের আলোকে জানতে পারি করোনাভাইরাস মোকাবিলায় স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালকসহ সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিবর্গ যথাযথ প্রদক্ষেপ নিতে প্রতিনিয়ত ব্যর্থ হচ্ছেন।

এ ব্যর্থতার কারণে ২২ এপ্রিল পর্যন্ত দেশের ১৭০ জন ডাক্তার, ১০০ জন পুলিশ, ২৮ জন সাংবাদিক ৭ জন প্রশাসনিক কর্মকর্তা, নার্সসহ ৩৩২৮ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন এবং ইতিমধ্যে ১১০ জন মৃত্যুবরণ করেছেন।

এ ভাইরাস ব্যক্তি থেকে ব্যক্তি এবং এক জনগোষ্ঠী থেকে অন্য জনগোষ্ঠীতে সংক্রামিত হওয়ার সম্ভাবনা থাকলেও ডাক্তারদেরকে ইতোপূর্বে স্বয়ংসম্পূর্ণ বা কার্যত ব্যক্তিগত নিরাপত্তা প্রোটেকশন ইকুইপমেন্ট সরঞ্জামাদি অর্থাৎ (পিপিই) সরবরাহ করতে ব্যর্থ হয়েছেন।

তাছাড়া (আইনশৃঙ্খলা) ডিসিপ্লিনারি ফোর্স, সাংবাদিক ও করোনা মোকাবিলায় সংশ্লিষ্টদের জন্য যথাযথ ব্যক্তিগত নিরাপত্তার সরঞ্জামাদির ব্যবস্থা গ্রহণ করতে ব্যর্থ হয়েছেন।

যদিও দেশের সকল মানুষের স্বাস্থ্য সুরক্ষার লক্ষ্যে যাবতীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করার ক্ষেত্রে তিনি ক্ষমতাবান ও দায়িত্বশীল বটে। এর দায় তিনি কোনোভাবে এড়াতে পারবেন না।

যা বাংলাদেশ সংবিধানের অনুচ্ছেদ ১৫(ক), ১৮(১) এবং ৩২ অনুচ্ছেদে স্বাস্থ্য সেবার ব্যাপারে উল্লেখ রয়েছে। তার মধ্যে অনুচ্ছেদে ৩২ অনুযায়ী স্বাস্থ্য সেবা মানুষের মৌলিক অধিকার যা নিশ্চিত করার দায়িত্ব রাষ্ট্রের।।

আইনজীবী তার নোটিশে আরও বলেন, সার্বিক বিবেচনায় প্রফেসর মো. আবুল কালাম আজাদ তার পদ থেকে এর পূর্বেই পদত্যাগ করা যক্তিযুক্ত ছিল। কিন্তু তিনি তা করেন নাই, তাই নোটিশ পাঠিয়ে নোটিশ প্রাপ্তির পর যত দ্রুত সম্ভব পদত্যাগ করার জন্য অনুরোধ করা হলো। অন্যথায় তার বিরুদ্ধে দেশের প্রচলিত আইন অনুযায়ী আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে এবং তার অবিবেচক কার্যকালাপের জন্য সৃষ্ট সব ধরনের ক্ষতির জন্য তিনি দায়ী থাকিবেন।

এমআইপি/প্রিন্স/খবরপত্র




শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর









© All rights reserved © 2020 khoborpatrabd.com
Theme Developed BY ThemesBazar.Com