রবিবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০২:৪২ পূর্বাহ্ন




মাইক্রোসফট-ওরাকল কেউ পাবে না টিকটক

আইটি ডেস্ক:
  • আপডেট সময় মঙ্গলবার, ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০




জনপ্রিয় ভিডিও শেয়ারিং অ্যাপ টিকটক কেনার জন্য মাইক্রোসফট যে প্রস্তাব দিয়েছিল, রোববার তা প্রত্যাখ্যান করে চীনা প্রতিষ্ঠান বাইটড্যান্স। এরপর গুঞ্জন রটে, মাইক্রোসফটের পরিবর্তে ওরাকলের কাছে টিকটকের মার্কিন অংশ বিক্রি করবে বাইটড্যান্স। তবে গতকাল সোমবার (১৪ সেপ্টেম্বর) সংশ্লিষ্ট সূত্রের বরাতে চীনের রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম সিজিটিএনের খবরে বলা হয়েছে, টিকটকের মার্কিন শাখা মাইক্রোসফট কিংবা ওরাকল কারো কাছেই বিক্রি হবে না। সূত্রটির তথ্যমতে, বিশ্বের সবচেয়ে দামি স্টার্টআপ কোম্পানি বাইটড্যান্স তাদের সফল অ্যাপ টিকটকের সোর্স কোর্ড কোনো মার্কিন কোম্পানির হাতে তুলে দেবে না। এর আগে আরেকটি সূত্র সাউথ চায়না মর্নিং পোস্টকে জানিয়েছিল, বাইটড্যান্স তাদের টিকটকের সোর্স কোর্ড বিক্রি বা হস্তান্তর না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এদিকে বাইটড্যান্স এক বিবৃতি জানিয়েছে, তারা গুঞ্জন বিষয়ে কোনো মন্তব্য করবে না।

গত মাসে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্রে টিকটক কোনো মার্কিন প্রতিষ্ঠানের কাছে বিক্রি করার নির্দেশ দেন, অন্যথায় ব্যবসা বন্ধের হুমকি দেন। সে জন্য সেপ্টেম্বরের মাঝামাঝি পর্যন্ত সময় বেঁধে দেন ট্রাম্প। তিনি ১৫ সেপ্টেম্বরের মধ্যে টিকটক কোনো মার্কিন প্রতিষ্ঠানের কাছে বিক্রির জন্য বলেন। তবে সেসময় ওয়াশিংটনের সঙ্গে বাইটড্যান্সের আলোচনায় বেইজিং কোনো ভূমিকা রাখেনি। কিন্তু বিক্রির সময় কাছাকাছি ঘনিয়ে আসায় ধারণা করা হচ্ছে, বিষয়টি নিয়ে মাথা ঘামানো শুরু করেছে বেইজিং।
প্রযুক্তি বিষয়ক সংবাদমাধ্যম টেকক্রা জানিয়েছে, কিছুদিন আগে চীন সরকার তাদের রপ্তানি নীতি সংশোধন করেছে, যা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের কোনো প্রতিষ্ঠানের কাছে টিকটকের মালিকানা বিক্রি বা হস্তান্তর প্রক্রিয়ায় বাইটড্যান্সকে আটকাতে পারে। আর এবার দেশটির রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম বাইটড্যান্সের সঙ্গে ওরাকলের চুক্তির গুজব অস্বীকার করেছে। টেকক্রাে র প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, টিকটকের মার্কিন অংশের মূল্য ধরা হয়েছে প্রায় ৫০ বিলিয়ন ডলার। চীনের প্রথম কনজ্যুমার অ্যাপ টিকটক, যা পশ্চিমা বিশ্বে ব্যাপক জনপ্রিয়।




শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর









© All rights reserved © 2020 khoborpatrabd.com
Theme Developed BY ThemesBazar.Com